ঠাকুরগাঁওয়ে বিষ্ণুমূর্তি স্বেচ্ছায় জমা দিলেন থানায়

ঠাকুরগাঁও সংবাদদাতা ॥ ঠাকুরগাঁও হরিপুর উপজেলার আমগাঁও ইউনিয়নের কুমারপাড়া গ্রামে পুকুর মাটি কাটার সময় একটি বিষ্ণুমূর্তি পাওয়া গেছে।
গত বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলার কুমার পাড়া গ্রামে পুকুরের মাটি কাঁটার সময় একদল শ্রমিক উদ্ধার করে গতকাল বৃহস্পতিবার হরিপুর থানায় জমা দেয়।
স্থানীয় চেয়ারম্যান পাভেল তালুকদার জনান, হরিপুর উপজেলার একটি ইটভাটার মালিক ইট তৈরির কাঁচামাল হিসেবে মাটি সংগ্রহ করতে স্থানীয় জগেন পালের সঙ্গে চুক্তি করেন। চুক্তি অনুযায়ী গত বুধবার সকাল থেকে ভেকু মেশিনের মাধ্যমে ওই ইউনিয়নের কুমারপাড়া গ্রামের একটি পুকুর থেকে মাটি কাটে শ্রমিকরা।
তিনি আরো বলেন, সন্ধ্যায় সেখান থেকে মাটি নিয়ে ইটভাটায় আসার পর মাটি সংরক্ষণের সময় একটি পাথর খণ্ড বেরিয়ে আসলে তা দেখতে পায়। শ্রমিকরা ওই পাথর খণ্ডটি ‘মূর্তি’ বলে নিশ্চিত করে বিষয়টি ভাটা মালিককে অবগত করে। পরে ভাটা মালিক বিষয়টি আমাদের অবগত করেন। পরে জনপ্রতিনিধি, ইটভাটা মালিক ও স্থানীয়দের পরামর্শে আজ শুক্রবার দুপুরে সেচ্ছায় থানায় গিয়ে মূর্তিটি জমা দেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, ইউপি চেয়ারম্যান পাভেল তালুকদার, ইটভাটা মালিক আলহাজ্ব হবিবর রহমান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ভাটা মালিকের ছেলে জামিল চৌধুরীসহ অনেকে। মূর্তিটি স্বেচ্ছায় জমা দেয়ায় থানা পুলিশের কর্মকর্তাগণ তাদের সাদুবাদ জানান।
এ ব্যাপারে হরিপুর থানার ওসি আওরঙ্গ জেব জানান, আজ দুপুরে পাথরের তৈরি বিষ্ণুমূর্তিটি থানায় জমা দিয়েছেন। মূর্তিটি ৩ ফুট লম্বা, ১৫ ইঞ্চি প্রস্থ আর ওজন ৩০ কেজি।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন