মঙ্গলবার, ১৫ Jun ২০২১, ১০:৩৪ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তিঃ
দিনাজপুর থেকে প্রকাশিত সরকারি মিডিয়া তালিকাভুক্ত দৈনিক খবর একদিন পএিকার জন্য খানসামা, হাকিমপুর, ঘোড়াঘাট ও চিরিরবন্দরের জন্য উপজেলা প্রতিনিধি আবশ্যক। মেইল : khaborekdin2012@gmail.com। মোবাইল : 01714910779
ব্রেকিং নিউজঃ
দিনাজপুরে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ বিষয়ক সচেতনতামূলক প্রচারণার উদ্বোধন দিনাজপুরে ভুমিহীন আন্দোলন রংপুর বিভাগীয় মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত নিখোঁজ ৪ তরুণের সন্ধানের দাবীতে দিনাজপুরে মানববন্ধন জিয়া হার্ট ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে সাবেক মন্ত্রী মরহুমা খুরশীদ জাহান হকের ১৫তম মৃত্যুবার্ষিকী পালন অঞ্জলী নারী উন্নয়ন সমবায় সমিতিকে নিবন্ধন ও সনদপত্র প্রদান দিনাজপুর নাট্য সমিতি শিল্পকলা পদকে মনোনীত হওয়ায় বঙ্গবন্ধু’র প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন নবনির্বাচিত কমিটির বীরগঞ্জে নিখোঁজের একদিন পর কৃষকের মৃতদেহ উদ্ধার নবাবগঞ্জে আইন-শৃঙ্খলা বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত বিরামপুরে করোনা প্রতিরোধে কঠোর অবস্থানে প্রশাসন, মাস্ক না পরলেই জরিমানা খানসামায় বেড়েছে জ্বর-ডায়রিয়া রোগী ॥ জনবল সংকটে সেবা দিতে হিমশিম খাচ্ছে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

আমনের বীজ পাচ্ছেন না তেঁতুলিয়ার কৃষকরা

তেঁতুলিয়া সংবাদদাতা ॥ আমন ধান লাগানোর সময় এসেছে। বোরো ধান ঘরে তোলার পর পঞ্চগড়ের সীমান্তবর্তি উপজেলা তেঁতুলিয়ার ধান চাষিরা এখন আমন ধান রোপণের জন্য ব্যস্ত সময় পার করছেন। জমি তৈরী করার জন্য চাষ শুরু করেছেন। আমন ধানের চারা তৈরীর সময় চলে যাচ্ছে। কিন্তু ভালো ধানের বীজ পাচ্ছেন না তারা।
অনেক চাষিই কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর থেকে বীজ সংগ্রহ করেন। কারণ কৃষি অফিসের বীজ অন্যান্য বীজের থেকে ভালো। জানা গেছে, বীজ দিতে পারছেন না তেঁতুলিয়া উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন বিএডিসি থেকে বীজ সংগ্রহ করে নির্ধারিত চাষিদের কাছে সরবরাহ করে।
এবছর আমন মৌসুমে বীজ ফেলার সময় পেরিয়ে গেলেও এখনো বিএডিসি বীজ প্রদান করেনি। কতৃপক্ষ জানায়, প্রত্যেক ইউনিয়নে চারজন কৃষককে প্রদর্শনী আকারে চাষ করার জন্য সার ও বীজ দেয়া হয়। এছাড়াও প্রত্যেক ইউনিয়নের প্রায় অর্ধশতাধিক কৃষককে আমনের বীজ দেয়া হয়। এসব বীজ গবেষণালব্ধ ও উন্নতমানের। তাই কৃষকরাও চায় এই বীজ সংগ্রহ করে আমন চাষ করতে।
চাষিরা বলছেন, বাজারে বিভিন্ন বেসরকারি কোম্পানীর বীজ পাওয়া যায়। এসব বীজ অনেক সময় গজায়না। ধানের ফলনও ভালো হয়না। তাই তারা সরকারি অধিদপ্তরের বীজ চায়। ভজনপুর এলাকার কৃষক দেলোয়ার হোসেন জানান, ‘সরকারি অধিদপ্তর থেকে যে বীজ দেয়া হয় তা উন্নতমানের। আমি বোরো ধানের বীজ পেয়েছিলাম। আবাদ ভালো হয়েছে। তাই আমন ধানের বীজের জন্য যোগাযোগ করেছি।’
এদিকে, তেঁতুলিয়া উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম জানান, বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন বিএডিসি থেকে আমনের বীজ দিতে বিলম্ব হওয়ায় তা কৃষকদের মাঝে বিতরণ করা যাচ্ছে না।’
অন্যদিকে, এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন পঞ্চগড় কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন বিএডিসির সিনিয়র পরিচালক মো. আব্দুল হাই।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন