দিনাজপুরে করোনা আরো দুইজনের মত্যু \ আক্রান্ত ৯৫ জন

দিনাজপুর প্রতিনিধি \ দিনাজপুরে করোনায় গত ২৪ ঘন্টায় আরো ৯৫ জন আক্রান্ত ও দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় এখন পর্যন্ত ৭৮৯৫ জন আক্রান্ত ও ১৬০ জনের মৃত্যু হলো।্ একই সময়ে ৩৯ জনসহ এ পর্যন্ত ৬০০৩ জন সুস্থ হয়েছেন। তবে আক্রান্ত ৭৮৯৫ জনের মধ্যে ৬০০৩ জন সুস্থ ও ১৬০ জনের মৃত্যু হওয়ায় বর্তমানে দিনাজপুর জেলায় করোনায় আক্রান্ত রোগির সংখ্যা রয়েছে ১৭৩২ জন। যা আগের দিন ছিল ১৬৭৮ জন।
দিনাজপুর সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ জানান, শুক্রবার (২৫ জুন) সকাল ৯টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘন্টায় ২৪৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে ৯৫ জনের দেহে করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত রোগির সংখ্যা পৌঁছেছে ৭৮৯৫ জনে। নতুন আক্রান্ত ৯৫ জনের মধ্যে সদর উপজেলাতেই ৩৯ জন (রেট+৭)। এছাড়া বিরলে ১৩ জন (রেট+১২), বিরামপুরে ৩ জন (রেট+২), বোচাগঞ্জে ৯ জন (রেট+৯), ফুলবাড়ীতে ২৪ জন (রেট+২২), হাকিমপুরে ৩ জন (রেট+৩), নবাবগঞ্জে ৩ জন (রেট+৩) ও পার্বতীপুর উপজেলায় একজন। একই সময়ে নতুন আরো ৩৯ জনসহ এ পর্যন্ত ৬০০৩ জন সুস্থ হয়েছেন। আর গত ২৪ ঘন্টায় সদর উপজেলায় একজন ও হাকিমপুর উজেলায় একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় এখন পর্যন্ত ১৬০ জনের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার পরীক্ষা বিবেচনায় আক্রান্তের হার ছিল ৩৯ দশমিক ০৯ শতাংশ। যা আগের দিন ছিল ৪৮ দশমিক ২০ শতাংশ।
দিনাজপুরে মোট আক্রান্ত ৭৮৯৫ জনের মধ্যে সদর উপজেলায় সবচেয়ে বেশী ৪৬০৬ জন। এছাড়া বিরলে ৪২৪, বিরামপুরে ৪৭৫ জন, বীরগঞ্জে ২০১ জন, বোচাগঞ্জে ২৪৯ জন, চিরিরবন্দরে ২৭৭ জন, ফুলবাড়ীতে ২৯৪ জন, ঘোড়াঘাটে ৯৭ জন, হাকিমপুরে ১৯৪ জন, কাহারোলে ১৮৩ জন, খানসামায় ১৩৩ জন, নবাবগঞ্জে ২১৭ ও পার্বতীপুর উপজেলায় ৫৪৫ জন।
মোট মৃত ১৬০ জনের মধ্যে সদর উপজেলায় ৮১, বিরলে ৯ জন, বিরামপুরে ১০ জন, বীরগঞ্জে ৬ জন, বোচাগঞ্জে ৫ জন, চিরিরবন্দরে ১৩ জন, ফুলবাড়ীতে ৯ জন, হাকিমপুরে ৩ জন, কাহারোলে ৫ জন, খানসামায় ৪ জন, নবাবগঞ্জে ৩ জন ও পার্বতীপুর উপজেলায় ১২ জন। তবে জেলার ১৩টি উপজেলার মধ্যে ঘোড়াঘাট উপজেলায় এখন পর্যন্ত কারো মৃত্যু হয়নি।
সিভিল সার্জন জানান, গত ২৪ ঘন্টায় ৪৯১টিসহ এ পর্যন্ত ৪৯৪১৯টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। আর গত ২৪ ঘন্টায় মোট ২৪৩টিসহ (আরটি পিসিআর-১১৪টি, রেট-১২৯টি) এ পর্যন্ত ৪৬১১৪টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এ ছাড়া গত ২৪ ঘন্টায় ২৭৫ জনসহ ৩৯৬৫৩ জন কোয়ারেন্টাইন নেয়া হয়েছে এবং ৭৫ জনসহ ৩৫৪৬৫ জন কোয়ারেন্টাইন হতে ছাড় পেয়েছেন। বর্তমানে হোম আইসোলেশনে রয়েছেন ১৬৬১ জন ও হাসপাতালে ১১৫ জন ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে করোনায় আক্রান্ত ৭১ জন আর উপসর্গযুক্ত সন্দেহভাজন ৪৪ জন।
এদিকে দিনাজপুর সদর উপজেলায় দ্বিতীয় দফার লকডাউন কার্যকর করতে ও কঠোরভাবে পালনে কাজ করছে জেলা প্রশাসনসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। পাশাপাশি বিভিন্ন রাজনেতিক ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনা সাধারণ মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে মাস্ক ও জনসচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করছে। আগামী ২৮ জুন রাত ১২টায় এই লকডাউন শেষ হবে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন