দিনাজপুরে এ পর্যন্ত ১ লাখ ১৩ হাজার ৩৫৪ জনকে করোনা টিকার প্রথম ডোজ ও ৭৮ হাজার ৮৩০ জনকে দ্বিতীয় ডোজ প্রদান

দিনাজপুর প্রতিনিধি \ দিনাজপুর জেলায় এ পর্যন্ত ১ লাখ ১৩ হাজার ৩৫৪ জনকে করোনা টিকার প্রথম ডোজ ও ৭৮ হাজার ৮৩০ জনকে দ্বিতীয় ডোজ প্রদান করা হয়েছে। আর বর্তমানে জেলায় ৯ হাজার ৩১৭ ডোজ করোনা টিকা মজুদ রয়েছে। এই টিকাগুলো জেলার ইপিআই সেন্টারের কোল্ডস্টোরে সংরক্ষিত রয়েছে।
দিনাজপুর সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ জানান, সারা দেশের ন্যায় চলতি বছরের ৭ ফেব্রুয়ারি দিনাজপুরে টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরু হওয়ার পর সোমবার (৫ জুলাই-২০২১) তারিখ পর্যন্ত ১ লাখ ১৩ হাজার ৩৫৪ মানুষকে করোনা টিকার প্রথম ডোজ প্রদান করা হয়েছে। এর মধ্যে পুরুষ ৭১ হাজার ৮৬ জন ও মহিলা ৪২ হাজার ২৭১ জন। আর দ্বিতীয় ডোজ প্রদান করা হয়েছে ৭৮ হাজার ৮৩০ জন মানুষকে। এর মধ্যে পুরুষ ৫১ হাজার ২৯২ জন ও মহিলা ২৭ হাজার ৫৩৮ জন।
সিভিল সার্জন জানান, টিকার ডোজ শেষ হয়ে যাওয়ায় টিকা প্রদান কার্যক্রম সাময়িক বন্ধ থাকে। পরবর্তিতে আবারো টিকা কার্যক্রম শুরু হওয়ায় গত ১৯ জুন থেকে দিনাজপুরে পুনরায় টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। দিনাজপুরে প্রথম দফায় ৯৬ হাজার করোনা টিকার ডোজ পাঠানো হয় এবং দ্বিতীয় দফায় পাঠানো হয় ১০ হাজার ৮০০ ডোজ।
এদিকে সোমবার (৫ জুলাই) দুপুর ১টায় দিনাজপুর নার্সিং উনস্টিটিউট প্রাঙ্গণে স্থাপিত টিকাদান কেন্দ্রে মাহবুবুল হক খান (দৈনিক আলোকিত দিনাজপুর পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার ও দিনাজপুর নিউজ ২৪ ডটকম’র দিনাজপুর প্রতিনিধি) করোনা টিকার প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছি। টিকা প্রদানের সময় সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ নিজে উপস্থিত থেকে আমাকে টিকা পদান সার্বিক সহযোগিতা করেন। আমার সাথে টিকা গ্রহণ করেন দিনাজপুর জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক (ডিসি ফুড) এসএম সাইফুল ইসলাম ও দিনাজপুর সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মোঃ রেজাউল ইসলাম। আমাকে টিকা গ্রহণে সার্বিক সহযোগিতার জন্য সিভিল সার্জনের প্রতি আমি কর্তজ্ঞ।
উল্লেখ্য, সোমবার (৫ জুলাই-২০২১) তারিখ প্রর্যন্ত দিনাজপুর জেলায় ৯৩৫৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে ৬৫২৭ জন সুস্থ হয়েছেন। এ পর্যন্ত জেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন ১৮১ জন। বর্তমানে জেলায় করোনায় আক্রান্ত রোগির সংখ্যা রয়েছে ২৬৪৬ জন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন