1. admin@dailykhaborekdin.com : দৈনিক খবর একদিন :
  2. khaborekdin2012@gmail.com : Khabor Ekdin : Khabor Ekdin
শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৪:৪৮ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তিঃ
দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে গভীর/অগভীর নলকূপ মালিকদের নিয়ে দিনব্যাপী কর্মশালা। ভারতে করোনা নেগেটিভ, হিলি চেকপোস্টে পজিটিভ দিনাজপুরিয়া ইঞ্জিনিয়ার্স অব টেক্সটাইল পরিবারের শীতবস্ত্র বিতরণ দিনাজপুরে লংকাবাংলা ফাউন্ডেশনের বাইসাইকেল বিতরণ ব্রোকলি চাষে লাভবান কৃষক বোচাগঞ্জ উপজেলা প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি স্বর্গীয় পরেশ চন্দ্র সরকারের ৭ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে শীতবস্ত্র বিতরণ দিনাজপুর সদরের ১০ ইউপি নির্বাচনে ৫৭ জন চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ ৫৫২ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা দিনাজপুরে ছাত্রলীগের ৭৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন ঘোড়াঘাটে গাঁজার গাছ সহ আটক ১ দশমাইলে মিডল্যান্ড ব্যাংকের উদ্যোগে বীরমুক্তিযোদ্ধাদের করোনা সামগ্রী বিতরন

কাবুলে হামলাকারী কারা এ আইএস-কে?

দৈ‌নিক খবর একদিন ডেস্ক
  • সর্বশেষ সংবাদ শুক্রবার, ২৭ আগস্ট, ২০২১
  • ৮৯ বার প‌ঠিত

দৈনিক খবর একদিন বিদেশ : ইসলামিক স্টেট খোরাসান (আইএস-কে) আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের হামিদ কারজাই বিমানবন্দরে ভয়াবহ বোমা হামলার দায় স্বীকার করেছে। এ হামলায় এখন পর্যন্ত নিহতের সংখ্যা ১১০ জন। আহত আরও দেড় শতাধিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। আহতদের মধ্যে অনেকেরই অবস্থা গুরুতর বলে জানা গেছে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সূত্রে। কিন্তু কারা আসলে এ সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আইএস-কে? তাদের হামলার উদ্দেশ্য বা কি ছিল? বিবিসির এক প্রতিবেদনে জানা গেছে, আফগানিস্তানের কাবুলে হামলা চালানো আইএস-কে সংগঠনটির পূর্ণ নাম ইসলামিক স্টেট অব খোরাসান। জঙ্গী গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) এর আঞ্চলিক সহযোগী শাখা হিসেবে কাজ করছে তারা। বর্তমান আফগানিস্তান ও পাকিস্তান নিয়ে প্রাচীন আমলে যে অঞ্চল সেটিই খোরাসান নামে পরিচিত ছিল। বর্তমানে আইএস-কে আফগানিস্তান ও পাকিস্তানে সক্রিয় রয়েছে বলে জানা গেছে। কয়েক বছর ধরে সহিংস ঘটনার পেছনে এই গোষ্ঠীটি দায়ী বলে অভিযোগ পাওয়া যায় এর আগে। বিশেষ করে তারা স্কুলছাত্রীদের ওপর হামলা এমনকি হাসপাতালে টার্গেট করে হামলা চালিয়েছিল। এখন তারা আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী গোষ্ঠী আইএসের নেটওয়ার্কের সঙ্গে সম্পৃক্ত। এটাও ধারণা করা হয় যে, আইএস-কে’র তালেবানের তৃতীয় পক্ষ হাক্কানি নেটওয়ার্কের সঙ্গে সম্পৃক্ততা রয়েছে। তবে তালেবানের সঙ্গে তাদের বড় পার্থক্যও বিদ্যমান। তারা অভিযোগ করে গোপন চুক্তির অংশ হিসেবে আমেরিকানরা আফগানিস্তানকে তালেবানের হাতে তুলে দিয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, আইএস এখন আফগানিস্তানের নিরাপত্তার জন্য বড় হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে যেটি আগামী তালেবান সরকারের জন্যও অশনিসংকেত। ১৫ আগস্ট তালেবান কাবুল দখলে নেওয়ার পর আফগানিস্তানের পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়। দেশটির প্রেসিডেন্ট আশরাফ গানি পালিয়ে যাওয়ার কারণে নিরাপত্তা ব্যবস্থা ভেঙে পড়ে। তালেবান সরকার গঠনের কাজ শুরু করলেও আঞ্চলিক কয়েকটি সংগঠন তালেবানের বিরোধীতা শুরু করে। তালেবানের পূর্বের শাসনকাল নিয়ে জনমনে এক ধরনের অস্বস্তি তো আছেই। এর মাঝেই বিমানবন্দরে হামলা চালিয়ে তাদের উপস্থিতি জানান দিলো আইএস-কে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সকল সংবাদ
Theme Designed BY Kh Raad ( Frilix Group )
%d bloggers like this: